টিকটক নিষিদ্ধ : নিয়ম মেনে তড়িঘড়ি ব্যবস্থা নিচ্ছে কোম্পানি

0
511

মাদ্রাজ হাইকোর্ট জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাপ, Tiktok কে ব্যান করার জন্য কেন্দ্রকে নির্দেশ দিয়েছে । তাদের অভিযোগ Tiktok পর্নোগ্রাফিকে উৎসাহ দিচ্ছে যা ভারতীয় নারী ও বাচ্চাদের মনে কুরুচিকর প্রভাব ফেলছে।এই অভিযোগের প্রত্যুত্তরে Tiktok এর তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে ” আমরা স্থানীয় আইন ও নিয়মনীতি মেনে চলতে বাধ্য। এতদিন আমরা ২০১১ সালের তথ্যপ্রযুক্তি নিয়ম সংক্রান্ত নীতি মেনেই এগিয়েছিলাম।আমরা এখন মহামান্য মাদ্রাজ হাইকোর্টের আদেশের অপেক্ষা করছি তা হাতে এলেই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।”

Tiktok এর তরফ থেকে আরও জানানো হয়েছে তাদের একমাত্র লক্ষ্য একটি সুস্থ ও সুন্দর পরিবেশের মধ্যে দিয়ে মানুষকে বিনোদন দেওয়া।এর আগে কোম্পানি অনেক বড়ো পদক্ষেপ নিয়েছিল ইউজারদের গোপনীয়তা ও ভারসাম্য রক্ষা করার জন্য। সমস্ত নিয়মনীতি পালনের জন্য ভারতের হয়ে একজন চিফ নোডাল অফিসার কে নিযুক্ত করা হয়েছে।জনগণের তরফ থেকে করা অভিযোগের ভিত্তিতে পর্ণগ্রাফি ও বাচ্চাদের মনে এর প্রভাব টা খুঁটিয়ে দেখছে কোর্ট।

টিকটকের পূর্বে এই অ্যাপটি মিউজিক্যালি নামে ভারতের সোশ্যাল মার্কেটে পরিচিত ছিল।যেটির মূল কোম্পানি ছিল বাইটডান্স। ধীরে ধীরে মিউজিক্যালির জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পায়। তখন বাইটডান্স কোম্পানি টিকটকের সঙ্গে জোট বাধে।এরপর যে সমস্ত ব্যবহারকারী মিউজিক্যালি ডাউনলোড করেছিল।সেটি স্বয়মক্রিয়ভাবে টিকটকে পরিবর্তন হয়ে যায়।

সেনসর টাওয়ারের রিপোর্ট অনুযায়ী, সম্প্রতি অ্যান্ড্রয়েড এবং আইওএস ফোনে ১ বিলিয়ন টিকটক ডাউনলোড হয়েছে। ২০১৮ পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গোটা বিশ্বে ফেসবুকের পর সবচেয়ে বেশি ডাউনলোড অ্যাপ হল টিকটক।ফেসবুক ডাউনলোড হয়েছে ৭১১ মিলিয়ন এবং চাইনিজ অ্যাপটি ডাউনলোড হয়েছে ৬৩৩ মিলিয়ন বার।

এশিয়ান নিউজ এজেন্সির রিপোর্ট অনুযায়ী, ২৫০ মিলিয়ন ব্যবহারকারীদের মধ্যে ভারতে ২৫ শতাংশ অ্যাপটি ডাউনলোড করা হয়েছে।গত বছরের জুলাই মাসে ইন্দোনেশিয়া সরকারের তরফে এই অ্যাপটিকে ব্যান করা হয়েছিল।

পড়ুন : কেন্দ্রকে টিকটক অ্যাপ ব্যান করার নির্দেশ দিল হাইকোর্ট