পাবজি খেলতে খেলতে প্রেম, স্বামীর থেকে তালাক চায় মহিলা

0
437

পাবজি মোবাইল গেম সম্পর্কে তো আপনারা অনেকেই জানবেন। এই গেমে একটি ব্যাটেল গ্রাউন্ড থাকে যেখানে শেষ পর্যন্ত বেঁচে থাকলে আপনি জিতে যাবেন। পাবজি গেমকে কেন্দ্র করে এখনো পর্যন্ত ভারতে দশটির বেশি ঘটনা ঘটেছে এবং 16 জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। যে গুজরাটে পাবজি বন্ধ করার জন্য এই 16 জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল, সেই গুজরাটেই এবার পাবজি খেলার জন্য এক মহিলা তার স্বামীর থেকে তালাক চাইছে।

এইধরণের ঘটনা ভারতে প্রথম যেখানে কেউ পাবজির নেশায় নিজের স্বামীকেও ছাড়তে রাজি। ঘটনাটি ঘটেছে আমেদাবাদে। সেখানকার 19 বছরের এক মহিলা তার স্বামীর থেকে তালাক চেয়েছে। এই মহিলার একটি বাচ্চাও আছে যার বয়স এক বছরের কম। তালাক পেতে মহিলাটি রাজ্য মহিলা হেল্পলাইন নাম্বার 181 তে কল করে । সেখানে সে তার পতির থেকে তালাক ও গেম পার্টনারের সাথে থাকার ইচ্ছা প্রকাশ করেছে।

রিপোর্ট অনুযায়ী এই মহিলা একটি অবস্থাসম্পন্ন পরিবারের অন্তর্গত। তার বয়স যখন 18 বছর, সে পরিবারের দেখা এক বিল্ডিং কন্ট্রাক্টরের সাথে বিয়ে করে।বছর ঘুরতেই তাদের একটি সন্তানও জন্মায়। স্বামী স্ত্রীর মধ্যে এর আগে কোনো ঝগড়া ঝাটি না থাকলেও পাবজি তাদের জীবনে বড়ো সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে।

মহিলার বয়ান অনুসারে কিছু মাস আগে থেকেই সে পাবজিতে আসক্ত হয়ে পরে এবং নিয়মিত পাবজি খেলতে শুরু করে। এরপর এক শহরের একটি ছেলের সাথে তার পরিচয় হয়। তারা গেম খেলতে খেলতে চ্যাটিং ও শুরু করে। এভাবে দুজন দুজনকে ভালোবেসে ফেলে। এই নিয়ে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া শুরু হয়। এরপর ওই মহিলা শশুরবাড়ি ত্যাগ করে বাপের বাড়ি থাকতে শুরু করে ।

স্থানীয় মহিলা কাউন্সিলার জানিয়েছেন, তারা ওই মহিলাকে দ্বিতীয়বার ভাবার জন্য বললেও, সে ওই যুবককে ছাড়তে রাজি নয়। এমনকি ওই মহিলার বাবা মা ও এক ঘটনাকে কোনোভাবেই সমর্থন করছেন না। এইমুহূর্তে এই মহিলাকে আরেকটি মহিলার সাথে হোমে রাখা হয়েছে। কিছুদিন রাখার পরও যদি সে তার স্বামীকে ছাড়তে চায় তবে আইন অনুযায়ী এগোনো হবে।

পড়ুন : বিয়ের পিঁড়িতে বসে বর খেলছে ‘পাবজি’, দেখুন সেই ভাইরাল ভিডিও

সব খবর পড়তে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন – এখানে ক্লিক করুন

সব খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে যুক্ত হোন – এখানে ক্লিক করুন