নাম্বার এক রেখে কীভাবে বদলাবেন মোবাইল অপারেটর, জেনে নিন সহজ পদ্ধতি

0
785

আমরা এখন কম খরচে বেশি সুবিধা খুঁজি। সে নতুন ফোন হোক কিংবা সিম, আমাদের চাহিদা কিন্তু এক। তবে অনেকসময় এমন হয় যখন আমরা যে কোম্পানির সিম ব্যবহার করছি সে কোম্পানিটি অন্য কোম্পানির থেকে অধিক সুবিধা দিচ্ছে না। তখন বারবার মনে হয় এই সিম বাদ দিয়ে অন্য কোম্পানির সিম নিয়ে নেওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ । কিন্তু পরক্ষনে যেই মনে আসে এই নাম্বার তো অনেকের কাছে দেওয়া আছে, তখন বাধ্য হয়ে পুরানো সিমটিই ব্যবহার করতে হয়।

তবে আপনি কি জানেন যে ট্রাই আপনার এই সমস্যার কথা মাথায় রেখে MNP অর্থাৎ মোবাইল নাম্বার পোর্টেবিলিটি পরিষেবা চালু করেছে। এই পরিষেবায় আপনি নাম্বার এক রেখেই ইচ্ছাখুশি অন্য মোবাইল অপারেটর বেছে নিতে পারেন। আসুন জেনে নেই খুব সহজে আপনি আপনার নাম্বার ঠিক রেখে অপারেটর পরিবর্তন করবেন।

নাম্বার পরিবর্তন না করে অপারেটর বদলাবেন যেভাবে :

1 . প্রথমে আপনি কোন অপারেটরে যেতে চান তা বেছে নিন।

2 . তারপর আপনার ফোন থেকে PORT লিখে এবং দশ সংখ্যার মোবাইল নাম্বার লিখে 1900 তে এসএমএস পাঠান। যেমন – PORT 1234567890

3 . এরপর আপনি একটি মেসেজ পাবেন যেখানে একটি পোর্ট কোড দেওয়া থাকবে, যেটি 15 দিন পর্যন্ত বৈধ।

4 . এবার আপনি নিকটবর্তী রিটেলার বা স্টোরে যান (অবশ্যই বৈধ পরিচয়পত্র ও ছবি নিয়ে )। সেখানে গিয়ে আপনি যে অপারেটরে যেতে চান তা তাদেরকে বলুন। তারা আপনার থেকে পোর্ট কোড নাম্বার চাইবে।

5 . এরপর আপনার থেকে পোর্টের খরচ বাবদ সামান্য চার্জ নেওয়া হবে এবং নতুন একটি সিম দেওয়া হবে।

6 . নতুন অপারেটরে যাওয়ার আগে আপনাকে পুরানো অপারেটর থেকে কল করে অপারেটর পরিবর্তনের কারণ জিজ্ঞাসা করা হবে।

7 . ভেরিফিকেশন সমাপ্ত হওয়ার পর, 7 দিনের মধ্যে আপনার নাম্বার না বদলেই অপারেটর বদল হয়ে যাবে।

পড়ুন : মাত্র 36 টাকায় BSNL দিচ্ছে ছয় মাসের ইনকামিং কলের সুবিধা, আর নয় মাসে মাসে রিচার্জ

সব খবর পড়তে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন – এখানে ক্লিক করুন

টেক ভিডিও দেখার জন্য আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন – এখানে ক্লিক করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here