ভারতের নম্বর ওয়ান স্মর্টফোন ব্র্যান্ড Xiaomi আরো একটি বিশেষ প্রযুক্তি নিয়ে আসলো। নতুন এই প্রযুক্তির মাধ্যমে ৪,০০০ এমএএইচ এর কোনো স্মার্টফোন ১৭ মিনিটে ফুল চার্জ হবে। বেশকিছু দিন আগে থেকেই শোনা যাচ্ছিলো শাওমি ১০০ ওয়াট সুপার চার্জ টার্বো টেকনোলজির উপর কাজ করছে। এতদিন এটি পরীক্ষামূলক পর্যায়ে ছিল। তবে গতকাল কোম্পানি এই ১০০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং কে আনুষ্ঠানিকভাবে লঞ্চ করেছে।
শাওমির সাথে জোর টক্কর চলবে অপ্পো-র :
শাওমি বেজিং এ অনুষ্ঠিত একটি ডেভেলপার কনফারেন্সে নতুন এই সুপার চার্জিং প্রযুক্তিকে সামনে এনেছিল। সেখানে তারা একটি ভিডিওর মাধ্যমে শাওমি ১০০ ওয়াট সুপার চার্জ টার্বো এবং অপ্পো-র Super VOOC প্রযুক্তির মধ্যে পার্থক্য দেখিয়েছে। সেই ভিডিও অনুযায়ী, শাওমির ১০০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং এর মাধ্যমে যেখানে ৪,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি ১৭ মিনিটে ০-১০০ শতাংশ চার্জ হয়ে যাচ্ছে, সেখানে ৩,৭০০ এমএএইচ ব্যাটারি Super VOOC প্রযুক্তির সাহায্যে ১৭ মিনিটে ৬৫ শতাংশ চার্জ হচ্ছে।
সুপার চার্জ টার্বো প্রযুক্তিতে ৯ ফোল্ড প্রটেকশন : 
ভিডিও তে দেখা গেছে শাওমির ১০০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং এর মাধ্যমে কত দ্রুত ৪,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি ফুল চার্জ হচ্ছে। উদাহরণস্বরূপ বলা চলে, Redmi Note 8, Redmi Note 7 সিরিজ এবং Redmi K20 সিরিজ এর স্মর্টফোনগুলো ২০ মিনিটের কম সময়ে ফুল চার্জ হবে। শাওমি জানিয়েছে ১০০ ওয়াট সুপার চার্জ টার্বো টেকনোলজি ৯ ফোল্ড চার্জ প্রটেকশন এবং হাই ভোল্টেজ চার্জ পাম্পের সাথে নিয়ে আসা হয়েছে। কোম্পানির মতে, ৯ টির ফোল্ডের মধ্যে ৭ টি ফোল্ড মাদারবোর্ডের সুরক্ষার জন্য এবং ২ টি ফোল্ড ব্যাটারির সুরক্ষার জন্য ব্যবহার হয়েছে।
আগামী বছরে এই টেকনোলজির সাথে নতুন ফোন আসতে পারে :
শাওমির তরফে এখনো জানানো হয়নি এই প্রযুক্তির সাথে কোন স্মার্টফোনকে আনা হবে। যদিও আমরা আশা করতে পারি আগামী বছরে ১০০ ওয়াট সুপার চার্জিং এর সাথে নতুন স্মার্টফোন লঞ্চ হবে। এদিকে ভিভো ১২০ ওয়াট সুপার চার্জিং প্রযুক্তির উপর কাজ করছে বলে জানা গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here