ভোডাফোন-আইডিয়া এবং এয়ারটেলের পর রিলায়েন্স জিও ও ঘোষণা করেছে তাদের প্ল্যানের দাম ৪০ শতাংশ বৃদ্ধি পাবে। যদিও কোম্পানির তরফে কোনো প্ল্যানের ঘোষণা এখনো করা হয়নি। আগামী ৬ ডিসেম্বর নতুন প্ল্যান সম্পর্কে জানা যাবে। এদিকে জিও-র তরফে বলা হয়েছে প্ল্যানের মূল্য ৪০ শতাংশ বাড়লেও ৩০০ গুন্ বেশি সুবিধা পাবে গ্রাহকরা। আসুন জেনে নিই ৪০ শতাংশ দাম বৃদ্ধি হলে জিও প্যাক কত টাকা থেকে উপলব্ধ হবে।
জিও-র ২২২ টাকার অল ইন ওয়ান প্ল্যান :
জিওর সবচেয়ে কমদামি অল ইন ওয়ান প্ল্যান হলো ২২২ টাকা। এরসাথে ৪০ শতাংশ দাম বৃদ্ধি হলে প্ল্যানটির নতুন দাম হবে ৩২০ টাকা। অর্থাৎ ৮৮ টাকা বেশি খরচ হবে। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৮ দিন। এখানে  প্রতিদিন ২ জিবি ইন্টারনেট সহ প্রতিদিন ১০০ এসএমএস পাওয়া যাবে। এছাড়াও দেওয়া হবে আনলিমিটেড জিও টু জিও কলিং এবং অন্য নেটওয়ার্কে কল করার জন্য ১,০০০ মিনিট।
জিও-র ৩৪৯ টাকার প্ল্যান :
৬ ডিসেম্বর থেকে জিওর ৩৪৯ টাকার প্ল্যানটি ৪০ শতাংশ দাম বেড়ে ৪৮৮ টাকা হতে পারে। অর্থাৎ অতিরিক্ত ১৩৯ টাকা দিতে হবে। এখানে প্রতিদিন ১.৫ জিবি ডেটা এবং জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কলের সুবিধা দেওয়া হবে। অন্য নেটওয়ার্কের জন্য আলাদাভাবে আইইউসি প্যাক রিচার্জ করতে হবে। প্ল্যানটির ভ্যালিডিটি ৭০ দিন।
জিও-র ৩৯৯ টাকার প্ল্যান :
রিলায়েন্স জিও গ্রাহকদের সবচেয়ে পছন্দের প্ল্যান ছিল ৩৯৯ টাকার প্ল্যানটি। এই প্ল্যানের দাম ৪০ শতাংশ বেড়ে হতে পারে ৫৫৮ টাকা। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ৮৪ দিন। এখানে গ্রাহকরা জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কল এবং রোজ ১০০ এসএমএস এবং ১.৫ জিবি ডেটা পাবে। অন্য নেটওয়ার্কের জন্য আলাদাভাবে আইইউসি প্যাক রিচার্জ করতে হবে।
জিও-র ৪৪৪ টাকার প্ল্যান :
৪০ শতাংশ দাম বাড়লে জিওর ৪৪৪ টাকার প্ল্যানের নতুন দাম হবে ৬২১ টাকা। অর্থাৎ আগের তুলনায় ১৭৭ টাকা অতিরিক্ত দিতে হবে। এখানে  প্রতিদিন ২ জিবি ইন্টারনেট সহ প্রতিদিন ১০০ এসএমএস পাওয়া যাবে। এছাড়াও দেওয়া হবে আনলিমিটেড জিও টু জিও কলিং এবং অন্য নেটওয়ার্কে কল করার জন্য ১,০০০ মিনিট। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ৮৪ দিন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here