ভারতের তিন জনপ্রিয় টেলিকম কোম্পানি ভোডাফোন, এয়ারটেল ও জিও তাদের নতুন প্ল্যান ঘোষণা করে দিয়েছে। প্রায় ৪২ শতাংশ দাম বেড়েছে ভোডাফোন ও এয়ারটেলের প্ল্যানের, সেখানে জিও বাড়িয়েছে ৪০ শতাংশ মূল্য। ইতিমধ্যেই ভোডাফোন ও এয়ারটেলের নতুন প্ল্যান কার্যকরী হয়ে গেছে। যদিও জিও-র আজ থেকে নতুন প্ল্যান কার্যকরী হবে। তবে এখন প্রশ্ন একটাই যে দাম বাড়ালেও করা দিচ্ছে অধিক সুবিধা? আগের আর্টিকলে আমরা বলেছিলাম ২৮ দিনের, ৮৪ দিনের ও ৩৬৫ দিনের প্ল্যানে জিও অন্যদের থেকে অনেকটাই এগিয়ে। এই আর্টিকেলে আমরা জিও, এয়ারটেল এবং ভোডাফোনের সবচেয়ে কমদামি আনলিমিটেড প্ল্যান নিয়ে আলোচনা করবো।

আরও পড়ুন : দাম বাড়ালেও ভোডাফোন এয়ারটেলের থেকে সস্তা রিলায়েন্স জিও

জিও, এয়ারটেল ও ভোডাফোনের সবচেয়ে কমদামি আনলিমিটেড প্ল্যান :
আপনাকে জানিয়ে রাখি রিলায়েন্স জিও-র সবচেয়ে কমদামি প্ল্যানটি হলো ১২৯ টাকার। কোম্পানি ৯৮ টাকার প্ল্যানটি বাড়িয়ে ১২৯ টাকা করেছে। এখন এই প্ল্যানে গ্রাহকরা জিও থেকে জিও আনলিমিটেড এবং জিও থেকে অন্য নেটওয়ার্কে ১,০০০ মিনিট কলের জন্য পায়। এছাড়াও মোট ২ জিবি ডেটা এবং ৩০০ এসএমএস দেওয়া হয়। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৮ দিন।
এদিকে ভোডাফোন-আইডিয়া ও এয়ারটেলের ২৮ দিনের আনলিমিটেড প্ল্যানের মূল্য যথাক্রমে ১৪৯ টাকা ও ১৪৮ টাকা। ১৪৯ টাকায় ভোডাফোন/আইডিয়া থেকে ভোডাফোন/আইডিয়া আনলিমিটেড এবং ভোডাফোন/আইডিয়া থেকে অন্য নেটওয়ার্কে ১০০০ মিনিট অফার করা হচ্ছে। এছাড়াও এখানে মোট ২ জিবি ডেটা ৩০০ এসএমএস দেওয়া হবে।
আবার ১৪৮ টাকায় এয়ারটেল থেকে এয়ারটেল আনলিমিটেড এবং এয়ারটেল থেকে অন্য নেটওয়ার্কে ১,০০০ মিনিট কলের জন্য পায়। এছাড়াও মোট ২ জিবি ডেটা এবং ৩০০ এসএমএস দেওয়া হয়।
কোথায় বেশি সুবিধা :
অর্থাৎ আমরা দেখলাম দাম বাড়ানোর পর ও জিও অন্যদের থেকে অধিক সুবিধা দিচ্ছে। জিও-র ২৮ দিনের আনলিমিটেড প্ল্যান শুরু হয়েছে ১২৯ টাকা থেকে। সেখানে এয়ারটেল ও ভোডাফোন আইডিয়া ১৪৯ টাকায় একই সুবিধা দিচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here