বিগত ২০১৯-এ ভারতে স্প্যাম কলের সংখ্যা ১৫% বৃদ্ধি পেয়েছে বলে একটি রিপোর্টে জানিয়েছে ট্রুকলার ইন্ডিয়া। তবে স্প্যাম কলের সংখ্যা বাড়লেও বিশ্বের সমস্ত স্প্যাম কলের দেশভিত্তিক তালিকায় ভারতের নাম বর্তমানে পঞ্চম স্থানে যেখানে ২০১৮-য় ছিল দ্বিতীয় স্থানে। ট্রুকলারের রিপোর্ট থেকে জানা গেছে বর্তমানে গড়ে ভারতের প্রত্যেক ব্যবহারকারীর কাছে মাসে ২৫.৬ টি স্প্যাম কল আসে।
ওই রিপোর্ট থেকে জানা গেছে, এই ধরনের ফোনগুলি করা হয় মূলত ভারতের ফাইনান্সিয়াল সার্ভিস প্রোভাইডারদের দ্বারা। এবং সবথেকে অদ্ভুত ব্যাপার এই ফোনগুলির মাধ্যমে নাগরিকদের মধ্যে ভুল তথ্য প্রেরণ এবং মহিলাদের যৌন হেনস্থার ঘটনাও লক্ষ্য করা গেছে। স্প্যাম কল ছাড়াও স্প্যাম মেসেজেও ভারত বিশ্বে অষ্টম স্থানে রয়েছে এবং প্রত্যেক ভারতীয় প্রতি মাসে গড়ে ৬১ টি স্প্যাম মেসেজ পান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here