চীনা স্মার্টফোন কোম্পানি Xiaomi একটি ইলেকট্রিক সাইকেল লঞ্চ করেছে। Qicycle Electric নামে আসা এই ইলেকট্রিক সাইকেলের ডিজাইন অনেকটাই কোম্পানির ফোল্ডিং বাইক Qicycle EF1 এর মতো। এটি সেকেন্ড জেনারেশন মডেল, যার কারণে ডিজাইন থেকে পারফরম্যান্সের ক্ষেত্রে এটি আগের তুলনায় অনেক উন্নত।
Qicycle Electric দাম :
আপাতত এই সাইকেলটিকে কোম্পানি চীনে লঞ্চ করেছে। পুরানো জেনারেশন ফোল্ডিং ইলেকট্রিক বাইকের তুলনায় এই সাইকেলটি বেশি লম্বা। এর দাম ২,৯৯৯ ইউয়ান অর্থাৎ প্রায় ৩০ হাজার টাকা।
শাওমির এই নতুন ইলেকট্রিক সাইকেলের নকশাটি সাধারণ। এটি দেখতে একটি সাধারণ সাইকেলের মতোই। এর হ্যান্ডেলবারের মাঝখানে হালকা সেনসিটিভ ডিসপ্লে রয়েছে। এতে গিয়ার, গতি, ব্যাটারি পাওয়ার, লাইট এবং চার্জ করার সময় ব্যাটারি পাওয়ারের শতাংশ দেখা যায়। সাইকেল চালানোর সময় ব্যবহারকারীরা সহজেই এই সমস্ত তথ্য দেখতে পারবেন।
সাইকেলের তিনটি রাইডিং মোড রয়েছে  প্যাডেল, বুস্ট এবং বৈদ্যুতিন)। অর্থাৎ আপনি পায়ে চালিয়ে ভ্রমণ করতে পারেন। সাইকেলের হ্যান্ডেলবারের বাম দিকে পাওয়ার স্যুইচ, হর্ন বোতাম এবং হাই-লো-গিয়ার সুইচ রয়েছে। হ্যান্ডেলবারের ডানদিকে একটি ঘূর্ণমান থ্রোটল সুইচ রয়েছে যা ইলেকট্রিক মোডে সাইকেল চালনা করতে ব্যবহৃত হয়।
ব্যাটারি, রেঞ্জ ও চার্জিং :
শাওমির এই নতুন সাইকেলে 5.2Ah লিথিয়াম ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে। এটি ৪০ কিলোমিটার পর্যন্ত ব্যাটারি লাইফ দেয়। ইলেকট্রিক মোডে এই সাইকেল সর্বোচ্চ ২৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টায় চলে। ব্যাটারিটি সাড়ে ৩ ঘন্টায় ফুল চার্জ হবে বলে কোম্পানি দাবি করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here